আজ শনিবার, ৯ই আশ্বিন ১৪২৮, ২৫শে সেপ্টেম্বর ২০২১

স্টেশনে চলচ্চিত্র নির্মাতা লাঞ্ছিত, মামলা নেইনি জিআরপি

বিরতিহীন বনলতা এক্সপ্রেস ট্রেনের খোঁজ নিতে গিয়ে চাঁপাইনবাবগঞ্জ স্টেশনে রেল কর্মচারী মো. ওবাইদুল্লাহর হাতে লাঞ্ছিত হন তরুণ চলচ্চিত্র নির্মাতা প্রাচ্য পলাশ। এ ঘটনায় লিখিত এজাহার দিলেও মামলা হিসেবে নথীভূক্ত করেনি জিআরপি থানা। বিষয়টি তদন্তের নামে নাটক সাজিয়ে নিস্পত্তির চেষ্টা করেছেন জিআরপি চাঁপাইনবাবগঞ্জ ফাঁড়ির এসআই সোলায়মান। ঘটনাটি ১২ আগস্ট সরেজমিন তদন্ত করেন জিআর পুলিশের পাকশি জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. মজনু ও জিআরপি রাজশাহী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রকিব। তারাও স্টেশন মাস্টার মো. ওবাইদুল্লাহর দ্বারা প্রভাবিত হয়ে বিষয়টি গোপনের চেষ্টা করেছেন।  

নির্মাতা প্রাচ্য পলাশ জানান, গত ২৩ মে সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে বনলতা এক্সপ্রেসের চলাচল ও টিকিটের দাম সম্পর্কে খোঁজ নিতে গেলে স্টেশনে কর্মরত মো. ওবাইদুল্লাহ প্লাটফর্মে টি-শার্টের কলার ধরে টানা-হেঁচড়া ও অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে। পরে অফিস রুমে নিয়ে আটকে রেখে লাঞ্ছিত করে ও বাবরবার মারধর করে মামলা দিয়ে চালান দেয়ার হুমকী দেয়। এ ঘটনায় গত ২৫ মে সকালে জিআরপি রাজশাহী থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করি।

তিনি আরও বলেন, চাঁপাইনবাবগঞ্জ জিআরপি ফাঁড়ির এসআই সোলায়মান তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়ার পরিবর্তে আপোষ-মিমাংসার চেষ্টা করেছেন। একাধিকবার বললেও আমার অভিযোগটি মামলা হিসাবে এন্ট্রি করেনি জিআর থানা পুলিশ।

অভিযুক্ত মো. ওবায়দুল্লাহ বলেন, আমার অনুমতি ছাড়াই স্টেশনের অফিস কক্ষে প্রবেশ করে প্রাচ্য পলাশ। অফিসে প্রবেশের কারণ জানতে চাইলে তিনি উত্তেজিত হন। এ সময় আমাদের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়েছে। বিষয়টি নিয়ে তিনি জিআরপি ফাঁড়িতে অভিযোগ করেছিলেন পুলিশ তদন্ত করে কিছু পাননি।  

এ প্রসঙ্গে জিআরপি রাজশাহী থানার ওসি রকিব বলেন, ভুল বোঝাবোঝি থেকে তাদের মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। সেটি আমরা সমাধানের চেষ্টা করেছি। বিষয়টি মামলা নেয়ার মতো কিছু নয়।  

মন্তব্য সমুহ
০ টি মন্তব্য
মন্তব্য করতে লগইন করুন অথবা নিবন্ধন করুন
এই শ্রেনির আরো সংবাদ

ফিচার নিউজ