আজ শুক্রবার, ২৪শে বৈশাখ ১৪২৮, ৭ই মে ২০২১

চাঁপাইনবাবগঞ্জে জমি জালিয়াতি চক্রের মিথ্যা মামলায় পুলিশের তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের অভিযোগ

চাঁপাইনবাবগঞ্জের নাচোলে জালিয়াতি চক্রের মিথ্যা মামলায় পুলিশের তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের প্রতিবাদে সাংবাদিক সম্মেলন আয়োজন করে ভুক্তভোগীরা।

বুধবার দুপুরে চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা প্রেসক্লাবে ভুক্তভোগীর পরিবারের পক্ষ থেকে আব্দুল রাজ্জাক লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন। লিখিত বক্তব্যে আব্দুর রাজ্জাক বলেন, আমাদের পৈত্রিক সম্পত্তি নিয়ে বাটোয়ারা মামলা আদালতে বিচারাধীন রয়েছে এবং ওই সম্পত্তিতে আদালতের নিষেধাজ্ঞা জারি রয়েছে।

তারপরও নাচোলের জমি জালিয়াত রেজাউল করিম ওই সম্পত্তি তার স্ত্রীর দাবি করে মিথ্যা মামলা দিয়ে আমার পরিবারকে বিভিন্নভাবে হয়রানি করে আসছে। আর এই মিথ্যা মামলার তদন্ত করেন নাচোল থানার এসআই মোঃ আকবর হোসেন তদন্ত প্রতিবেদনে বলেন, জেলার নাচোল থানাধীন মাধবপুর মৌজার তফশীলকৃত জমিতে গত ১৫ নভেম্বর ২০২০ তারিখ ধান দেখতে যাবার সময়, বাদী রেজাউলের কাছে এক লক্ষ টাকা চাঁদা দাবি করেন আসামীরা, আর আমরা ৫ জন আসামী ধান লুট করে নিয়ে যায়। উক্ত সম্পত্তি নাচোলের টাকাহারা বাজার সংলগ্ম এবং জনবহুল এলাকা হওয়া সত্বেও স্থানীয়দের স¦াক্ষী না করে দূরবর্তী এলাকার মানুষজনকে স্বাক্ষী করা হয়েছে। তদন্তকারি কর্মকর্তা প্রতিবেদনে উল্লেখ করেন, বাদি জমির দলিলপত্র উপস্থাপন করতে পারে নাই। তারপরও নাচোল থানার ওসি সেলিম রেজার সাথে বাদিপক্ষের যোগসাজসে মোটা অংকের বিনিময়ে সাজানো প্রতিবেদন দাখিল করা হয়েছে। এমনকি তদন্তকারী কর্মকর্তা ঘটনাস্থলে না গিয়ে মিথ্যা, বানোয়াট ও মনগড়াভাবে ৭৫ বছর বয়সী বৃদ্ধকে চাঁদাবাজীর মামলার ১ নং আসামী করে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিল করেন আদালতে।

ভুক্তভোগীদের দাবি ভুয়া সাজানো নাটকের তদন্ত  অন্য কোন সংস্থার মাধ্যমে পুনঃতদন্ত করলে প্রকৃত ঘটনা উদঘাটন সম্ভব হবে। এরূপ জালিয়াতচক্রের অপতৎপরতা রোধে সম্পত্তি সুরক্ষার জন্য সরকার ও প্রশাসনের সহযোগিতা কামনা এবং সেই সাথে সঠিক তদন্ত ও বিচারও দাবি করেন তিনি।

এ বিষয়ে নাচোল থানার ওসি সেলিম রেজা সাথে মোবাইলের মাধ্যমে যোগাযোগ করা হলে এ ঘটনা সম্পর্কে তিনি কোন মন্তব্য করতে রাজি হননি।


মন্তব্য সমুহ
০ টি মন্তব্য
মন্তব্য করতে লগইন করুন অথবা নিবন্ধন করুন
এই শ্রেনির আরো সংবাদ

ফিচার নিউজ