আজ সোমবার, ৫ই আশ্বিন ১৪২৭, ২১শে সেপ্টেম্বর ২০২০

হরিপুর বাবুপাড়ায় বছরজুড়ে জলাবদ্ধতা, ড্রেন নির্মাণ ও রাস্তা সংস্কারের দাবি

চাঁপাইনবাবগঞ্জ পৌরসভার ০৪নং ওয়ার্ডের হরিপুর বোর্ডঘর জামে মসজিদ হতে শিবপুর ফুলতলা মোড় পর্যন্ত রাস্তার বেহাল দশায় বছরজুড়ে থাকে জলাবদ্ধতা। এতে চরম ভোগান্তিতে রয়েছে শান্তিমোড়-বালিয়াঘাট্টা রোডের একমাত্র বাইপাস রাস্তা ব্যবহারকারী পথচারী ও এলাকাবাসী। এই রাস্তা ব্যবহার করে মূল শহরে যাতায়াত করেন হরিপুর, শিবপুর, নিমগাছী, ডাবপাড়া, রাজারামপুর-মালোপাড়া এলাকার বিপুল সংখ্যক জনসাধারণ। বিভিন্ন খানাখন্দে পরিপূর্ণ রাস্তাটিতে একটু বৃষ্টি হলেও হাটু ভর্তি পানিতে দুর্ভোগে পড়েন পথচারী ও স্থানীয়রা। পথ চলতে গিয়ে হরহামেশায় সড়ক দুর্ঘটনার শিকার হচ্ছেন পথচারীরা। পানি নিষ্কাশনের ড্রেন নির্মাণ ও সড়ক সংস্কার না করা এবং কর্তৃপক্ষের উদাসীনতায় এই অবস্থার জন্য দায়ী মনে করেন স্থানীয়রা। অবস্থার পরিবর্তনে দ্রুত ড্রেন নির্মাণ ও রাস্তা সংস্কারের দাবি সকলের। 

স্থানীয় সংস্কৃতিকর্মী আরিফুল ইসলাম জানান, ১৯৯৯ সালে পিচ ঢালায় দিয়ে রাস্তাটি করা হয়। এরপর ২০১০ সালে সামান্য সংস্কার হলেও তারপর আর কোন কাজ হয়নি রাস্তাটি সংস্কারে। ঘনবসতিপূর্ণ এলাকায় রাস্তার দুই ধারেই বাড়ি হওয়ায় এবং পানি নিষ্কাষনের কোন ব্যবস্থা না থাকায় এক পশলা বৃষ্টি হলেই রাস্তাটি পানিতে পরিপূর্ণ হয়ে যায়। এতে রাস্তায় চলাচলে অনেক অসুবিধা হয়। মরার উপর খাঁড়ার ঘা হিসেবে কাজ করে পানির নিচে থাকা রাস্তার খানাখন্দ। রাস্তার দুই ধারে ড্রেন নির্মাণ করলে দুর্ভোগ থেকে রক্ষা পাবে এলাকাবাসী। 

সড়কটির সবচেয়ে বাজে অবস্থা হয়েছে হরিপুর বাবুপাড়ায়। এখানকার বাসিন্দা ও গৃহিনী অবনী কর্মকার বলেন, ভোটের সময় আসলেই সবাই বলে ড্রেন, রাস্তা সব করে দিবো। এরপর ভোট নিয়ে আর কোন খবর নেয়। কথা দিয়ে কথা রাখেনি এখানকার জনপ্রতিনিধিরা। 

গোপাল কর্মকার জানান, খানাখন্দে পরিপূর্ণ রাস্তায় প্রতিনিয়ত ঘটছে নানা দূর্ঘটনা। স্কুলগামী ছেলেরা পথচারীরা সাইকেল, মোটরসাইকেল নিয়ে পড়ে যায়। এমনকি মহিলারা রাস্তাটি দিয়ে যাওয়ার সময় অনেক ক্ষেত্রেই অপমানিত হয়। 

মুদি দোকানী মো. মনিরুল ইসলাম জানান, অনেক পথচারী শান্তিমোড়-বালিয়াঘাট্টা ব্যস্ত সড়কের বিকল্প হিসেবে এই বাইপাস রাস্তাটি ব্যবহার করেন। কিন্তু রাস্তার এই অবস্থার জন্য অনেকে ঝুঁকি নিয়েই এখন ব্যস্ত রাস্তা ব্যবহার করছেন। তিনি আরো বলেন, রাস্তার পাশেই বিশাল বিল রয়েছে। তাই পানি নিষ্কাশনেও কোন অসুবিধা নেয়। শুধুমাত্র প্রয়োজন রাস্তার পাশ দিয়ে ড্রেন নির্মানের। 

এবিষয়ে চাঁপাইনবাবগঞ্জ পৌরসভার ০৪ নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর মতিউর রহমান মটন মিয়া জানান, এই রাস্তার পাশে পৌরসভা থেকে ড্রেন নির্মাণের কোন পরিকল্পনা নেয়। তবে এলজিইডি থেকে রাস্তাটি সংস্কারের জন্য দরপত্র আহ্বান করা হয়েছে।

মন্তব্য সমুহ
০ টি মন্তব্য
মন্তব্য করতে লগইন করুন অথবা নিবন্ধন করুন
এই শ্রেনির আরো সংবাদ

ফিচার নিউজ